শিরোনাম

[getTicker results="10" label="random" type="ticker"]

দেশের সকল সংকটে সবার আগে ভূমিকা রাখতেন পীর সাহেব চরমোনাই রহ.। — জীবন ও কর্ম শীর্ষক আলোচনা সভায় বক্তারা




চরমোনাইর মরহুম পীর সাহেব মাওলানা সৈয়দ ফজলুল করীম রহ. গতানুগতিক পীর ছিলেন না, তিনি একজন আদর্শবাদী নেতাও ছিলেন। মানুষের আত্মিক পরিশুদ্ধির পাশাপাশি জাতীয় স্বার্থের জন্যও কাজ করেছেন ৷ তিনি ছিলেন বিনয়ী ও তাওয়াজু সম্পন্ন ব্যক্তি ৷ মুসলিম ঐক্যের জন্য আজীবন সাধনা করেছেন ৷ অন্যায়ের সঙ্গে আপোষ করেননি ৷ এদেশের স্বাধীনতা - সার্বভৌমত্বকে শক্তভাবে ধারণ করে তিনি রাজনীতির একটি নির্মোহ ধারা সৃ‌ষ্টি করতে সক্ষম হয়েছিলেন। সত্য উচ্চারণে কখনও ক্ষমতা, কারাদণ্ডের ভয় কিংবা পদ ও অর্থের প্রলোভনে প্রভাবিত হননি।

আজ ২৭ সেপ্টেম্বর'১৯ শুক্রবার, বিকাল ৩ টায়, মিরপুর-০১ এটিএন পার্টি হাউজে ইসলামী যুব আন্দোলন ঢাকা মহানগর উত্তরের উদ্যোগে আয়োজিত "মাওলানা সৈয়দ মুহাম্মাদ ফজলুল করীম পীর সাহেব চরমোনাই রহ. এর জীবন ও কর্ম - শীর্ষক আলোচনা সভা নগর সভাপতি মুফতি মুহাম্মাদ আবু তালহার সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মুফতি মোস্তাফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় বক্তারা এ মন্তব্য করেন।

আলোচনা সভায় বক্তারা আরও বলেন, মরহুম পীর সাহেব চরমোনাই রহ. তার বাবা মাওলানা এসহাক রহ. থেকে যে আধ্যাত্মিক সিলসিলা পেয়েছিলেন সাথে সাথে তাঁর আপোসহীন নেতৃত্ব জাতীয় পর্যায়ে তাঁকে অপরিহার্য করে তুলেছিল। দেশ জাতির যে কোনো সংকটে তিনি সবার আগে ভূমিকা রাখতে সচেষ্ট ছিলেন। একজন মনিষীর জন্য যে সকল গুণাবলী প্রয়োজন, তার মাঝে তা পূর্ণ মাত্রায় ছিল। তার জীবনের উপরে যথেষ্ট গবেষণা হওয়া দরকার।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মসজিদুল আকবার কমপ্লেক্স মিরপুরের মুহতামিম ও শাইখুল হাদিস আল্লামা মুফতি দিলাওয়ার হোসাইন ৷বিশেষ অতিথি হিসেবে আলোচনা করেন নারায়ণগঞ্জ দারুল উলুম দেওভোগ মাদরাসার মুহতামিম ও শাইখুল হাদিস মাও. আবু তাহের জিহাদী,জামিয়া কারীমিয়া আরাবিয়া রামপুরার মুহতামিম ও শাইখুল হাদিস মাওলানা মকবুল হুসাইন, বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক মুফতি জহির ইবনে মুসলিম,ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের সহকারী মহাসচিব আলহাজ আমিনুল ইসলাম,ইসলামী যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি কে এম আতিকুর রহমান,কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক মাও. মাহবুব আলম,কেন্দ্রীয় মহিলা ও পরিবার সম্পাদক মাও. সিরাজুল ইসলাম,ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের সাবেক কেন্দ্রীয় সদস্য আলহাজ আবু ইউসুফ, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন ঢাকা মহানগর পশ্চিমের সভাপতি মাও. গোলাম কিবরিয়া,জাতীয় ওলামা মাশায়েখ আইম্মা পরিষদ ঢাকা মহানগর উত্তরের প্রচার সম্পাদক মুফতি মোহাম্মাদুল্লাহ নাহিদ,জামিয়া আরাবিয়া খাদিমুল ইসলামের মুহাদ্দিস মাও. ফয়সাল আহমদ যাকারিয়া ৷

এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন ইসলামী যুব আন্দোলন ঢাকা মহানগর উত্তরের সহসভাপতি হা.মাও. আলী হুসাইন,যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুফতি নাসির উদ্দিন মাহমুদ,সাংগঠনিক সম্পাদক মুফতি হাফিজুল হক ফাইয়াজ,দফতর সম্পাদক মুফতি তাহমীদ মাদানী,অর্থ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন,প্রকাশনা সম্পাদক মাও. সাইফুল্লাহ আল খালিদ,দাওয়াত ও প্রশিক্ষণ সম্পাদক মাও. জহিরুল ইসলাম,বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পাদক নূর ইসলাম,আইন সম্পাদক এডভোকেট আব্দুল হাই মোল্লা,শিক্ষা ও সংস্কৃতি সম্পাদক মুফতি জাকির হাসান,তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক আব্দুল করিম,সমাজ কল্যাণ সম্পাদক নূরে আলম সিদ্দিকী,শিল্প ও বাণিজ্য সম্পাদক মুফতি জাহিদুল ইসলাম,উপ সম্পাদক নাজির আহমাদ তালুকদার,ইকবাল হুসাইন,আরিফ মৃধা প্রমুখ ৷

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য