শিরোনাম

[getTicker results="10" label="random" type="ticker"]

তবুও ডাক দিয়ে যাই


তামাদ্দুন২৪ডটকম: যারা সরকারি টাকায় হজ করেছেন তাদেরকে সংবর্ধণা না দিয়ে তাদের সঙ্গে "বেআদবি "কেন করা হচ্ছে!
আমাদের জীবন্ত আকাবির নিয়ে যারা ফেবুতে বা বাইরে সমালোচনা করছেন তারা কওমীর কেউ না৷
আজকের কওমী সরকারী সনদের পক্ষে থাকার নাম৷
আজকের কওমী শুকরিয়া মাহফিলের পক্ষে থাকার নাম৷ আজকের কওমী প্রশ্ন ফাঁসের নাম৷
আজকের কওমী নিজেদের ভেতর আরও বিভক্ত হবার নাম৷
পদ ব্যবহার করে নিজ স্বার্থ উদ্ধার করে আখের গোছানোর নাম৷

এই কওমী কাসেমুল উলুম ওয়াল খাইরাত আল্লামা কাসেম নানুতবীর সেই আপোষহীন আদর্শের নাম নয়৷
আজকের কওমী আল্লামা শাহ ওয়ালীউল্লাহর সেই বিপ্লবী চিন্তাধারার নাম নয়৷
এই কওমী সেই কওমী নয়৷
তবে কোনো কোনো মাদরাসা কোনো কোনো আপোষহীন ব্যক্তিত্ব আজও কালজয়ী বিপ্লবী চেতনার ধারক বাহক৷
সংখ্যায় কম হলেও এই প্রদীপ নিভু নিভু জ্বলবে৷
যারা বরইফা ডিজির মতো দুর্নীতিতে আক্রান্ত তারা ইলমে নববীর ধারক বাহক হতেই পারে না ৷ তাহারাই যুগের আবুল ফজল ফৈয়জি৷

বেফাক ও হাইআ হযরত মাওলানা আশরাফ আলী সাহেবের মতো আলেমর কবলে!
অবসর নিন হযরত, বিদায় নিন দয়া করে৷
আগামী প্রজন্মকে একটু সসম্মানে থাকার পথ রচনা করে দিবেন এই আবেদন অপররাধ হলেও বলে রাখি৷

ডাক দিয়ে যাই, যদি কওমী মাদরাসা চিন্তার ইসলাহ ও সংশোধন না করে তাহলে আজকের কওমী আরেক জন শাইখুল হাদীস আল্লামা আজিজুল হক রহ আরেক জন আল্লামা ফজলুল হক আমিনী রহ উপহার দিতে পারবে না৷
সরকারি দরবারে নয় ইলমে নববীর দরবারের পথিক হোন হযরত! দরবারে নববীতেই ইযযত সম্মান৷ এই সম্মান মর্যদাই ছিলো অতীত আকাবির ও আসলাফের পুঁজি৷ দীনের জন্য কষ্ট হলেও ইলমের গৌরব, ইসলামের শান মান বৃদ্ধিই ছিলো সেই কাফেলার সাধান৷ ধ্যান, জ্ঞান৷

লাবিব আবদুল্লাহ
উম্মাহ চিন্তক, আলেমে দ্বীন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য