শিরোনাম

[getTicker results="10" label="random" type="ticker"]

করোনার ছুটিতে করণীয়। মাওলানা লাবীব আব্দুল্লাহ


তামাদ্দুন ডেস্ক:করোনাভাইরাসের বাধ্যতামূলক ছুটিতে অনেক দেশ৷ অনেক মানুষ৷ মৃত্যুর হাতছানি৷ ভয়৷ এই ভয়ের মাঝেও হতে হবে আশাবাদী৷ তওবার মাধ্যমে শুর হোক নতুন জীবন৷ গুনাহগুলো থেকে ফিরে আসা৷ আল্লাহর রহমতে আশ্রয় নেওয়া৷ আল্লাহর রহমতের দিকে প্রত্যাশী হয়ে যিকর করা আল্লাহর৷
হাদীসে বর্ণিত দুআগুলোর অজিফা হিসেবে নিয়মিত আমল করা যেতে পারে৷ হাদীসে বর্ণিত দুআর বই সংগ্রহে রাখা৷ দুআগুলো মুখস্ত না থাকলে হিফজ শুরু করা যেতে পারে৷

বাধ্যতামূলক একাকী এই জীবনকে নতুন করে মূল্যায়ণ করে নতুন আঙ্গিকে সাজানো৷ অপরকে মাফ করে নিজকে নিজে অতীতের জন্য মাফ করে সাজানো এই জীবন৷ যেকোনো সময় ম়ত্যুর ডাক আসতে পারে৷ লা ইলাহা ইল্লাহ জপতে থাকা৷ অন্যন্য দুআও পড়তে থাকা৷

অবসরে কুরআনে কারীমকে সাথী বানাতে পারি আমরা৷ তিলাওয়াত ও তাদাব্বুর৷ চিন্তা ভাবনা করতে পারি কুরআনি নির্দেশনায়৷ আয়াতের মুজেযায়৷ কুরআন তিলাওয়াতে মানসিক প্রশান্তি পাওয়া যাবে৷
বাসায় কুরআন ও হাদীসের দরস তালীমের হালাকা বা পাঠচক্র করা যেতে পারে৷ সীরাতে নববীর সম্মিলিত পাঠ হতে পারে৷ সুন্নাহগুলো বাস্তবজীবনে আমলে আনার প্রশিক্ষণ হতে পারে পারিবারিকভাবে৷

আরবী ভাষা শিক্ষা গ্রহণ শুরু হতে পারে৷ নামাযের দুআর অর্থ জানতে এবং কুরআনের মজা নিতে আরবী শিক্ষার বিকল্প নেই৷ যারা আরবী পারেন ইংরেজি ভাষা শিক্ষা শুরু হতে পারে দাওয়াতি নিয়তে৷
বাসায় অনেক দিন থাকলে ক্লান্তিবোধ হতেই পরে৷ মেজাযেও সমস্যা হতে পারে৷ ঠান্ডা মাথায় সবরের সঙ্গে পরিবারের সদস্যরে হক আদায় করতে চুড়ান্ত ধৈর্যের প্রশিক্ষণ নিতে হবে৷ পরস্পরে আল্লাহর জন্য ভালোবাসা৷ বাচ্চাদের সঙ্গে তাদের মানসিকতা ধরে পথচলা৷ শিক্ষা দেওয়া৷ বাচ্চারা খেলতে পছন্দ করে৷ খেলার আয়োজনও রাখা ঘরে৷ আনন্দঘন পরিবেশে পাঠের আয়োজন থাকতে পারে৷

প্রতিদিন কিছু সাদাকা করা৷ প্রতিবেশীর খবর রাখা৷ সাধ্যের ভেতর সহযোগিতা করা৷ আত্মকেন্দ্রিক এই সময়ে সহযোগিতার মনোভাব লালন করা৷ সাধ্যের ভেতর প্রতিবেশীদের খাদ্য সামগ্রী উপহার বা হাদিয়া দেওয়া৷ করোনায় আক্রান্ত না হলে মসজিদে ফরজ নামাযগুলো আদায় করা৷ সুন্নত ও নফল ঘরে পড়া৷ এই ক্ষেত্রে উলামায়ে কেরামের নির্দেশনা মনে চলা৷ তবে সরকারি ও আলেমদের সমন্বিত সিদ্ধান্তগুলো মেনে চলা৷ হটকারিতা না করা৷ সবকিছুতে ষড়যন্ত্র না দেখে বৈশ্বিক সমস্যার বাস্তবতা উপলব্দি করে সকল মানুষের কল্যাণচিন্তা করা৷

মৃত্যু আসবেই৷ রোগ ও শিফা আল্লাহর পক্ষ থেকে৷ হাদীসের ভাষ্য অনুযায়ী প্রতিটি রোগের ঔষধ রয়েছে৷ চিকিৎসা রয়েছে৷ রোগে অগ্রিম সতর্ক ও চিকিৎসা গ্রহণ করা৷
দুআ মানসিক শান্তি৷ চিকিৎসা ও দুআ সমন্বয় হোক৷

সকল হারামি কাজ, দুর্নীতি, গোনাহর পরিবেশ ও আয়োজন থেকে নিজকে বাঁচিয়ে রাখা৷ পরিবার ও সমাজকে বাঁচাতে সচেষ্ট হওয়া৷ গোপন ও প্রকাশ্য গোনাহ ও পাপ বর্জন করে সকল সংকটে আল্লাহমুখী হওয়া হোক বাধ্যতামূলক করোনার ছুটিতে আমাদের অঙ্গিকার৷ প্রতিজ্ঞা৷ ডাক্তারদের পক্ষ থেকে করণীয় বর্জনীয় বিষয়গুলো অবশ্যই মেনে চলা৷ সচেতন থাকা৷ অন্যকে সচেতন করা৷

আল্লাহ আমাদের দেশসহ বিশ্বকে বিশ্ববাসীকে করোনাভাইরাসের মহামারি ও মহা সংকট থেকে মুক্ত করুন৷ হিফাজত করুন৷ শান্তি ও নিরাপত্তার একমাত্র মালিক আল্লাহ৷ রাবব্বুল আলামীন৷ দয়ার সাগর৷ তিনি রাহমান৷ তিনি রাহীম৷ তার দয়া তার মায়ার ভিখারী আমরা৷

লেখক, পরিচালক: ইবনে খালদুন ইনস্টিটিউট
23/3/2019

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য